শনিবার, ১৬ ডিসেম্বর, ২০১৭
ইসলামী দলগুলোর নতুন মোর্চা: ‘দেখি কী করি’ অবস্থা
মোজাম্মেল হক তুহিন
Published : Wednesday, 6 December, 2017 at 10:45 PM, Update: 07.12.2017 2:40:30 PM

মাওলানা আব্দুল লতিফ নেজামী

মাওলানা আব্দুল লতিফ নেজামী

নতুন মোর্চা গঠন নিয়ে ‘দেখি কী করি’ অবস্থায় আছে আওয়ামী লীগ ও বিএনপি নেতৃত্বাধীন জোটের বাইরে থাকা ইসলামী দলগুলো। নির্বাচনকে সামনে রেখে দীর্ঘদিন ধরেই তারা নতুন মেরুকরণ নিয়ে ভাবছে। তবে রাজনৈতিক সার্বিক পরিস্থিতি বিবেচনায় নির্বাচনের আগ মুহ‚র্তেই তারা নতুন মোর্চার আত্মপ্রকাশ ঘটাতে চান। এই প্রক্রিয়ার সঙ্গে সংশ্লিষ্ট কয়েকজনের সঙ্গে আলাপ করে এমনটি জানা গেছে।

বিএনপি জোট থেকে চারটি ইসলামী দলের সমন্বয়ে গঠিত ‘ইসলামী ঐক্যজোট’ বেরিয়ে যাওয়ার পর তাদের নেতৃত্বে নতুন ইসলামী মোর্চা নিয়ে রাজনৈতিক অঙ্গনে আলোচনা শুরু হয়। বেরিয়ে যাওয়ার পর দলের নেতারা সেরকম ইঙ্গিত দিয়েছিলেন। যার পরিপ্রেক্ষিতে বিএনপি জোট থেকে বের হয়ে গিয়ে আরও দু-একটি ইসলামী দল সেই মোর্চায় যোগ দেওয়ার গুঞ্জন ওঠে। তবে প্রায় এক বছরেও সেই নতুন মোর্চা আলোর মুখ দেখেনি।

বিএনপি থেকে বেরিয়ে যাওয়া ইসলামী ঐক্যজোটের দলগুলোর মধ্যে রয়েছে নেজামে ইসলামী পার্টি, খেলাফত ইসলামী, ওলামা কমিটি ও ফারায়েজী জামাত। এর বাইরের আরও কয়েকটি ইসলামী দল নতুন জোটে যোগ দিতে পারে। এসব দলের মধ্যে রয়েছে বাংলাদেশ খেলাফত আন্দোলন, বাংলাদেশ খেলাফত মজলিস (একাংশ), জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম (একাংশ) ও মুসলিম লীগসহ আরও কয়েকটি ইসলামভিত্তিক দল। জোট গঠনের জন্য ইসলাম ধর্মভিত্তিক রাজনৈতিক দলগুলোর সঙ্গে একাধিকবার আলাপ-আলোচনা করেছেন ইসলামী ঐক্যজোটের নেতারা। আলাপ-আলোচনার বাইরে তারা ধর্মীয় ও রোহিঙ্গা ইস্যুতে একত্রে কর্মসূচিও পালন করেছে। 

এই নতুন মোর্চা গঠনের মূল উদ্যোক্তা ইসলামী ঐক্যজোটের সঙ্গেই হেফাজত ইসলামের ঘনিষ্ঠ সম্পর্ক রয়েছে। এই জোটের নেতারা অনেকেই হেফাজতের কেন্দ্রীয় নেতা। এই জোটের ও হেফাজতের সঙ্গে ঘনিষ্ঠ এমন একজন দায়িত্বশীল নেতা নাম প্রকাশ না করার শর্তে আজকালের খবরকে বলেন, ‘এটা সবারই জানা সরকারের চাপেই তারা বিএনপি জোট ছেড়েছে। বলতে গেলে এখন তারা সরকারঘেঁষা রাজনীতি করছে। আসলে তারা কালক্ষেপণ করছে। নির্বাচনের সময়ে তারা কি করবে তা নির্দিষ্ট করে বলা মুশকিল। তবে এই নেতারা আগামী দিনে জোট বদলের খেলায় যে নামবেন তা নির্ধিদ্বায় বলা যায়।’

তিনি আরও বলেন, ‘এই নেতারা বিএনপির কাছ থেকেও ভালো আচরণ পাননি। বিএনপি থেকেও ঝামেলা ছিল। কোনো সহযোগিতা কখনো পাওয়া যায়নি। বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর ইসলামী ঐক্যজোটের চেয়ারম্যান মাওলানা আব্দুল লতিফ নেজামীকে তো সরাসরি বলেছেন, আমরা আপনাদের নিয়ে বিপদে আছি। দেশের ভেতরে চাপ আছে। বিদেশেরও আছে। ইউরোপীয় ইউনিয়ন তো আমাদের চাপ দিয়েই যাচ্ছে। যদিও বিএনপি চায়নি দল দুটি ২০ দলীয় জোট থেকে বেরিয়ে যাক। আবার ফিরিয়ে নেওয়ার ব্যাপারেও তাদের কোনো আগ্রহ আছে বলে মনে হয় না।’


নতুন ইসলামী মোর্চা গঠনের বিষয়ে জানতে চাইলে ইসলামী ঐক্য জোটের চেয়ারম্যান মাওলানা আব্দুল লতিফ নেজামী আজকালের খবরকে বলেন, ‘একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে টার্গেট করেই আমাদের নতুন ইসলামী মোর্চা গঠনের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। সেই উদ্দেশ্যেই বিএনপি জোট থেকে বের হয়ে আসি। বিষয়টি নিয়ে ইসলামী ঐক্যজোটের চারটি দল একমত পোষণ করেছিল। তারপর থেকেই নতুন ইসলামী মোর্চা গঠনের লক্ষ্যে আমরা কাজ করছি। এই মোর্চায় বিএনপি-আওয়ামী লীগের জোটের বাইরে থাকা আরও কয়েকটি ইসলামী দল যোগ দিতে পারে।’

কবে নাগাদ সেই নতুন মোর্চার আত্মপ্রকাশ হবে- এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘নির্বাচনকে টার্গেট করে যেহেতু সেই মোর্চা তাই নির্বাচনের আগেই সেটি আত্মপ্রকাশ হবে। তবে রাজনৈতিক পরিস্থিতি বিবেচনায় অংশগ্রহণকারী দলগুলো মনে করলে আরও আগেই ইসলামী নতুন মোর্চার প্রকাশ হতে পারে।’

নতুন ইসলামী মোর্চা গঠিত হলে বিএনপি-আওয়ামী লীগের জোটের যোগ দেওয়ার সম্ভাবনা কতটুকু জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘ইসলামী দলগুলোর স্বাতন্ত্র্য পরিচয়ের জন্যই আমরা নতুন মোর্চা করতে যাচ্ছি। তাই বিদ্যমান দুই জোটের কোনো জোটেই যোগ দেওয়ার সম্ভাবনা নেই।’

বাংলাদেশ খেলাফত আন্দোলনের আমির মাওলানা জাফরুল্লাহ খান বুধবার আজকালের খবরকে বলেন, ‘আমরা দীর্ঘদিন ধরেই ইসলামী দলগুলো নিজেদের মধ্যে ঐক্য প্রক্রিয়া জোরদারের জন্য কাজ করছি। নতুন একটি মোর্চা গঠন করার জন্য। সেটি কেবল ভোটের রাজনীতির জন্য নয়, ধর্মীয় বিষয়ে কাজ করার লক্ষ্যও থাকবে সেই মোর্চার।’

তিনি আরও বলেন, ‘আলাপ-আলোচনা প্রাথমিক পর্যায়ে আছে। সবাই বসে লক্ষ্য-উদ্দেশ্য চূড়ান্ত করার পরই আনুষ্ঠানিক ঘোষণা দেওয়া হবে।’
এ প্রসঙ্গে ইসলামী ঐক্যজোটের মহাসচিব মুফতি ফয়জুল্লাহ বলেন, ‘স্বকীয় অবস্থানে থেকে আমরা সামনে এগিয়ে যেতে চাই। তবে ইসলামী ঐক্যজোটের বাইরে থাকা ইসলামী দলগুলো ঐক্যের প্রয়োজনীয়তা অনুভব করছে। মূলত প্রকৃত ইসলামী দলগুলোকে আমরা ঐক্যের আহŸান জানিয়েছি। এ নিয়ে দীর্ঘদিন কাজও চলছে। আশা করা যায়, একটি ঐক্যবদ্ধ প্ল্যাটফর্ম তৈরি করা যাবে।’

আজকালের খবর/এসএ


সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর ⇒
সর্বাধিক পঠিত
সম্পাদকমণ্ডলীর সভাপতি : গোলাম মোস্তফা || সম্পাদক : ফারুক আহমেদ তালুকদার
সম্পাদকীয়, বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : আজিজ ভবন (৫ম তলা), ৯৩ মতিঝিল বাণিজ্যিক এলাকা, ঢাকা-১০০০।
ফোন : +৮৮-০২-৪৭১১৯৫০৬-৮। বিজ্ঞাপন : +৮৮০১৭৮৭-৬৮৪৪২৪, ০১৭৯৫৫৫৬৬১৪, সার্কুলেশন : +৮৮০১৭৮৯-১১৮৮১২
ই-মেইল : newsajkalerkhobor@gmail.com, addajkalerkhobor@gmail.com
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত দৈনিক আজকালের খবর
Web : www.ajkalerkhobor.com, www.eajkalerkhobor.com