রবিবার, ২২ অক্টোবর, ২০১৭
ইসরায়েলের পক্ষ নিয়ে ইউনেস্কো ছাড়ল আমেরিকা
অনলাইন ডেস্ক
Published : Thursday, 12 October, 2017 at 9:07 PM, Update: 12.10.2017 9:20:16 PM

জাতিসংঘের অন্তর্গত সংস্থা ইউনেস্কো থেকে সরে দাঁড়াল আমেরিকা৷ মার্কিন প্রশাসনের দাবি, ইউনেস্কো অতিরিক্ত ইসরায়েল–বিরোধী অবস্থান নিচ্ছে৷ তারা ইজরায়েলের সঙ্গে যে আচরণ করছে তাকে সমর্থন করা যায় না৷ বৃহস্পতিবার মার্কিন প্রশাসনের তরফে এই সিদ্ধান্তের কথা জানানো হয়েছে। 

মার্কিন প্রশাসন সূত্রে খবর, তারাই ইউনেস্কোয় সব চাইতে বেশি অর্থ অনুদান হিসাবে দেয়৷ অথচ ইউনেস্কোর কার্যকলাপ নির্ধারণে তাদের মতামতকে গুরুত্ব দেওয়া হয় না৷ বিশেষ করে প্যালেস্তাইন কর্তৃপক্ষের ক্ষেত্রে আমেরিকা যা করতে বলে ইউনেস্কো তা করে না৷ তাদের অভিযোগ, ফিলিস্তিন প্রসঙ্গ যখনই আসে তখনই ইউনেস্কো ইসরায়েলকে নীচু চোখে দেখে৷ কারণ ইউনেস্কোয় আরব দুনিয়ার ভোট বেশি৷ তুলনায় ইসরায়েলের পক্ষে ভোটদাতা রাষ্ট্রের সংখ্যা কম৷

মার্কিন প্রশাসনের মুখপাত্র হেদার নওরাট জানান, ‘প্যারিস ভিত্তিক সংস্থায় তার প্রতিনিধিত্ব থাকবে। আর ওয়াশিংটন একটি পর্যবেক্ষক মিশন স্থাপন করবে। আপাতত সাময়িকভাবে ইউনেস্কো থেকে সরে দাঁড়াবার সিদ্ধান্ত বহাল থাকছে।’ 

উনেসকোর প্রধান ইরিনা বোকোভা বলেছেন, মার্কিন প্রত্যাহারের এই সিদ্ধান্ত 'গভীর আক্ষেপের'।

মিস বোকোভা আরও মন্তব্য করেছেন আমেরিকার বিদায় 'জাতিসংঘ পরিবার' তথা বহুপাক্ষিকতার জন্যই বিরাট এক ক্ষতি।

এর আগে ইউনেস্কোর নেওয়া একের পর এক সিদ্ধান্ত মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ও ইসরায়েলের তীব্র সমালোচনার মুখে পড়েছিল।

২০১১তে ইউনেস্কো ফিলিস্তিনিদের পূর্ণ সদস্যপদ দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়ার পর প্রতিবাদে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র সে বছর ওই সংস্থায় তাদের যে আর্থিক সহায়তা করার কথা ছিল, তা করেনি।

গত বছর ইউনেস্কো জেরুসালেমের একটি ধর্মীয় স্থান সম্পর্কে একটি বিতর্কিত প্রস্তাব গ্রহণ করে, যাতে ওই পবিত্র স্থানের সঙ্গে ইহুদীদের সম্পর্কের কথা একেবারেই উল্লেখ করা হয়নি। তার প্রতিবাদে ইসরায়েল ইউনেস্কোর সঙ্গে তাদের সব ধরনের সহযোগিতা বন্ধ করে দেয়।

এ বছরের গোড়ায় ইউনেস্কো পশ্চিম তীরের প্রাচীন শহর হেবরনকে যেভাবে ওয়ার্ল্ড হেরিটেজ সাইট ঘোষণা করেছিল, ইসরায়েলি প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহু তারও কড়া সমালোচনা করেছিলেন।

তবে 'ফরেন পলিসি' সাময়িকী বলছে, ইউনেস্কো থেকে আমেরিকার প্রত্যাহারের পেছনে শুধু ইসরায়েলকে সমর্থন জানানোই নয়, অর্থ সাশ্রয় করার উদ্দেশ্যও আছে।

ইউনেস্কো এই মুহুর্তে সংস্থার নতুন প্রধান নির্বাচনের প্রক্রিয়া নিয়ে ব্যস্ত।

ইরিনা বোকোভার জায়গায় সংস্থার প্রধান হিসেবে কে আসবেন, তা নিয়ে কাতার ও ফ্রান্সের দুই সাবেক মন্ত্রী - যথাক্রমে হামাদ বিন আব্দুলাজিজ আল-কাওয়ারি ও অড্রে অজুলে-র মধ্যে হাড্ডাহাড্ডি প্রতিযোগিতা চলছে।- বিবিসি

আজকালের খবর/এসএ





সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর ⇒
সর্বাধিক পঠিত
সম্পাদকমণ্ডলীর সভাপতি : গোলাম মোস্তফা || সম্পাদক : ফারুক আহমেদ তালুকদার
সম্পাদকীয়, বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : সুমনা গণি ট্রেড সেন্টার, (৪ তলা) প্লট-২, পান্থপথ (সার্ক ফোয়ারা মোড়), ঢাকা।
ফোন : ০২-৫৫০১৩২১৪ ফ্যাক্স : ০২-৫৫০১৩২১৫, বিজ্ঞাপন : ০১৭৮৭৬৮৪৪২৪, সার্কুলেশন : ০১৭৮৯১১৮৮১২
ই-মেইল : newsajkalerkhobor@gmail.com, addajkalerkhobor@gmail.com
Web : www.ajkalerkhoborbd.com, www.eajkalerkhobor.com